Tanvir Shahriar Rimon

Share on facebook
Share on linkedin
Share on whatsapp
Share on email

খোদাভীতি যখন উঠে যায় তখন শুধু রোজা ভাঙা নয়, তারচেয়ে বড় পাপ করতেও দ্বিধা করেনা মানুষ : তানভীর শাহরিয়ার ।

0

অফিস থেকে বের হবার প্রস্তুতি নিচ্ছি এমন সময় আমার ছেলে তেহজীবের ফোন

-বাবা, আজকে ইফতারিতে কেএফসি খেতে ইচ্ছে করছে !

-ঠিক আছে, বাবা আসার সময় নিয়ে আসব ।

যথারীতি বাসায় ফেরার পথে জিইসির নতুন কেএফসিতে গেলাম । সেখানে গিয়ে তো আমার চোখ ছানাবড়া !

রীতিমতো হাউসফুল । কাস্টমারদের অধিকাংশই বয়সে তরুণ । আমার ছেলের চেয়ে বয়সে ৭/৮ বছরের বড়ই হবে ওরা । কিছু মাঝ বয়সি লোকও দেখলাম । ও হ্যা ,ভালো কথা , আমার ছেলের বয়স গেল ফেব্রুয়ারিতে ১২ হলো ।

তো দেখলাম ছেলেমেয়ে গুলো ইফতারির সময়ের অপেক্ষা না করেই রীতিমতো ফ্রাইড চিকেনের উপর হামলে পড়েছে ! বিন্দাছ খাচ্ছে !

ঘড়িতে তখন ৫.১৫ বাজে । আমি আমার টেকওয়ে ওর্ডার প্লেস করতে করতে জানতে চাইলাম , রমজানে কী আপনারা রেস্টুরেন্ট এ খাবার পরিবেশন করেন ?

ওয়েটার হ্যা সূচক উত্তর দিলেন । সাথে যোগ করলেন,রমজানে মাশাল্লাহ সেল খুব ভালো । দুপুরে আজকে ৩৮ হাজার সেল হইছে । নরমালি এ সময়ে ৮/১০ হাজার হইতে কষ্ট হয় !

আমি হাসলাম । বললাম , কনগ্রেটস ! এবার নিশ্চয়ই মালিক পক্ষ ভালো ইনসেনটিভ দেবে !

দুনিয়ার এসব ইনসেনটিভ নিয়ে সবাই এতই ব্যস্ত যে খোদাভীতি বলে যে একটা কিছু আছে তা মানুষজন প্রায় ভুলেই গেছে ।

আমার ছেলে ৮ বছর বয়স থেকে সবকটি রোজা রাখছে ভীষণ সচেতনতায়, সম্পূর্ণ নিজের ইচ্ছায় । রমজানে নিয়মিত কোরআন পড়ছে , পাঁচ ওয়াক্ত নামাজ পড়ছে । আমার মেয়েটাও ৭ বছর বয়সে এ রমজানে একটি রোজা রেখেছে ।

আমি তাদের অনুপ্রাণিত করি । খোদাভীতি শিখাই ।

যখন এই ভীতিটা মানুষের উঠে যায় তখন সে শুধু রোজা ভাঙা নয় , তারচেয়ে বড় পাপ করতেও দ্বিধা করেনা ।

Leave a Reply